সৌদি খেজুরের বাগান করে সফল নাগেশ্বরী ইদ্রিস আলী

সৌদি খেজুরের বাগান করে সফল নাগেশ্বরী ইদ্রিস আলী

কুড়িগ্রাম থেকে শ্যামল ভৌমিক : ৩০.০৮.২০১৯
সৌদি খেজুরের বাগান করে সফল হয়েছেন কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার কৃষক ইদ্রিস আলী। তার বাগানে ৮৪টি গাছের মধ্যে ৯টি গাছে ফল আসায় কৃষি বিভাগসহ ঐ এলাকার মানুষসহ মাঝে সৌদি খেজুর চাষে আগ্রহ সৃষ্টি হয়েছে।

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী পৌরসভা এলাকার কামার পাড়া গ্রামের কৃষক ইদ্রিস আলী ৪ বছর আগে ২৭ শতক জমিতে ১০০টি সৌদি খেজুরের চারা লাগান। তার সৌদি প্রবাসী ছোট ভাইয়ের মাধ্যমে দুই দফায় সৌদি আরব থেকে তিনি এসব চারা সংগ্রহ করেন। দীর্ঘ চার বছর ধরে এসব চারা পরিচর্যার পর ৮৪টি গাছ বড় হয়ে উঠে।

সৌদি খেজুরের বাগান করে সফল নাগেশ্বরী ইদ্রিস আলীএর মধ্যে এবারই প্রথম আজোয়া, হেলালী ও বারহী জাতের ৯টি গাছে ফল আসে। ফল আসার পাশাপাশি খেজুর গাছের গোড়া থেকে গজিয়ে উঠছে নতুন নতুন অসংখ্য চারা। তার এই সফলতায় খুশি পরিবারের লোকজনও। ইদ্রিস আলী জানান, দীর্ঘ ৪ বছর পরিশ্রম করে আমি সফলতা পেয়ে বেশ খুশি।

আমার এ বাগান থেকে ইতিমধ্যেই নতুন নতুন চারা তৈরি হচ্ছে। আগামীতে আমি সৌদি খেজুর বাগানের পরিধি বাড়াবো। পাশাপাশি এলাকার লোকজন আমার কাছে এখনি চারা সংগ্রহ করতে আসছে। অন্যরা করতে চাইলে চারাও বিক্রি করবো। এ বাগানের গাছে আসা খেজুরের আকার এবং স্বাদ হুবহু সৌদি আরবে উৎপাদিত খেজুরের মতো হওয়ায় এলাকার কৃষকরা আগ্রহ প্রকাশ করছে এই খেজুর চাষে।

নাগেশ্বরী উপজেলার কৃষি কর্মকর্তা মোঃ শামসুজ্জামান জানান, এ অঞ্চলে বাণিজ্যিক ভাবে সৌদি খেজুর চাষের সম্ভাবনা রয়েছে। আমরা আগামীতে সৌদি খেজুর চাষ সম্প্রসারণে কৃষি বিভাগ থেকে উদ্যোগ নেবো। কৃষক ইদ্রিস আলী প্রমাণ করেছে এ এলাকার মাটি ও আবহাওয়া সৌদি খেজুর চাষের উপযোগী। তাই অন্যান্য কৃষকদের মাঝে তা ছড়িয়ে দেয়া গেলে সৌদি খেজুর বদলে দিতে পারে কুড়িগ্রামের কৃষি চিত্র।

আপনার মতামত লিখুনঃ