সুযোগ হাতছাড়া করে হারলেন বায়ার্ন

সুযোগ হাতছাড়া করে হারলেন বায়ার্ন
সুযোগ হাতছাড়া করে হারলেন বায়ার্ন

বুন্ডেসলিগায় টানা সাতবারের চ্যাম্পিয়নদের সময়টা ভালো কাটছে না। কোচ বদল করেও ধারাবাহিকতার দেখা পাচ্ছে না জার্মানির সফলতম দলটি।

এবার ঘরের মাঠে বায়ার লেভারকুজেনের বিপক্ষে হেরে গেল বায়ার্ন মিউনিখ। আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় শনিবার রাতে ২-১ গোলে জিতেছে লেভারকুজেন।

২০১২ সালের পর এই প্রথম বায়ার্নের মাঠে জিতল দলটি। ঘরের মাঠে নবম মিনিটে এগিয়ে যেতে পারতো বায়ার্ন। সের্গে জিনাব্রির শট বারে লেগে ফিরলে পরের মিনিটে এগিয়ে যায় লেভারকুজেন।

লেওন বেইলি এগিয়ে নেন লিগে শেষ পাঁচ ম্যাচে মাত্র একটি জয় পাওয়া দলটিকে। গোল করতে ভুলে যাওয়া টমাস মুলার পেলেন পুরানো স্বাদ। ৩৪তম মিনিটে দলকে ফেরালেন সমতায়।

লিগে ১৩৫৬ মিনিট পর বল পাঠাতে পারলেন জালে। লিগে এত লম্বা সময় গোলবিহীন থাকেননি কখনও। সমতা ফেরানোর উচ্ছ্বাস মিলিয়ে যায় পরের মিনিটেই।

আবারও দলকে এগিয়ে নেন বেইলি। এবারও তার গোলে বড় অবদান রাখেন কেভিন। দ্বিতীয়ার্ধে একের পর এক আক্রমণে অতিথিদের কাঁপিয়ে দেয় বায়ার্ন। সমতা ফেরানোর অনেক সুযোগ আসে দলটির সামনে। সেগুলোর একটাও কাজে লাগাতে পারেননি মুলার-জিনাব্রিরা।

শেষের দিকে মাঠে নামা ফিলিপে কৌতিনিয়োও পারেননি দলকে সমতায় ফেরাতে। দ্বিতীয়ার্ধে ৭৭তম মিনিটে ক্রসবারে লেগে ফিরে লেয়ন গোরেটস্কার হেড।

৮১তম মিনিটে লাল কার্ড দেখেন লেভারকুজেনের জোনাথন। একজন কম থাকার সুবিধা নিতে পারেনি স্বাগতিকরা। যোগ করা সময়ের প্রথম মিনিটে ক্রসবারে লেগে ব্যর্থ হয় স্বাগতিকদের আরেকটি চেষ্টা। বায়ার্নের বিপক্ষে টানা দ্বিতীয় জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে লেভারকুজেন।

লিগে তৃতীয় হারের তেতো স্বাদ পাওয়া বায়ার্ন ১৩ ম্যাচে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে চার নম্বরে রয়েছে। লেভারকুজেন এই জয়ে ২২ পয়েন্ট নিয়ে উঠে এসেছে সাতে। এদিন পাডারবর্নকে ৩-২ গোলে হারানো লাইপজিগ ২৭ পয়েন্ট নিয়ে উঠে এসেছে শীর্ষে।

এক ম্যাচ কম খেলা বরুশিয়া মনশেনগ্লাডবাখ ২৫ পয়েন্ট নিয়ে আছে দুই নম্বরে। ১৩ ম্যাচে ২৫ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে আছে শালকে। হের্টা বার্লিনকে ২-১ গোলে হারানো বরুসিয়া ডর্টমুন্ড ২৩ পয়েন্ট নিয়ে আছে পাঁচে।

আপনার মতামত লিখুনঃ