বিশ্বকাপে জন্টি রোডসের ফেভারিট ভাবনা

বিশ্বকাপে জন্টি রোডসের ফেভারিট ভাবনা
বিশ্বকাপে জন্টি রোডসের ফেভারিট ভাবনা

সাবেক-বর্তমানের প্রায় ক্রিকেট তারকাই এবারের বিশ্বকাপে সেরা ফেভারিটের প্রশ্নে ভারতের নামটা তালিকার শীর্ষে রাখছেন। জন্টি রোডসও বিশ্বকাপে খেলতে যাওয়া ভারতীয় দলের ভুয়সী প্রশংসা করলেন।

তবে ঠিক শুধুমাত্র ভারতই যে এই টুর্নামেন্টের একমাত্র শক্তিশালী দল, তা মানতে নারাজ তিনি। ফেভারিট তালিকায় শুধু ভারতকে নয়, আরো ছয়টি দলকে এবারের বিশ্বকাপের শক্তিমান দল বলে মানছেন দক্ষিণ আফ্রিকার এই ক্রিকেট গ্রেট।

জন্টি রোডস তার বিশ্লেষণে জানান-‘বিশ্বকাপের জন্য ভারতের ১৫ জনের দলটি দুর্দান্ত, কোনো সন্দেহ নেই। কিন্তু মনে রাখতে হবে এমন আরো ছয়টি দল এবারের বিশ্বকাপে খেলছে। বিশ্বকাপে সমান শক্তিধর অনেকগুলো দল আছে এবার।

কোন দল ভালো করবে, সেটা অনেককিছুর নিয়ামকের ওপর নির্ভর করে। কন্ডিশন অনুযায়ী ম্যাচের দিন কোন দল সবদিকের শক্তি বিবেচনা করে সেরা ভারসাম্যের একাদশ সাজিয়েছে সেটাও অনেক গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার।’

সেমিফাইনালের নকআউট রাউন্ডের আগে টুর্নামেন্টের ১০ দলের সবার বেশ ভালো একটা পরীক্ষা নেবে এবারের বিশ্বকাপ। দক্ষিণ আফ্রিকা টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী দিনেই স্বাগতিক ইংল্যান্ডের মুখোমুখি হচ্ছে ৩০ মে।

আর বিশ্বকাপের মাঠে ভারতের প্রথম ম্যাচ ৫ মে। সেই ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ জন্টি রোডসের দেশ দক্ষিণ আফ্রিকা। ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকার সেই ম্যাচ নিয়ে জন্টি রোডস বলছিলেন-ভারতের দলটা এবার অনেক অভিজ্ঞতা সম্পন্ন।

এমনকি দলের তরুণ বোলার জাসপ্রিত বুমরা ডেথ ওভারে বোলিংয়ের জন্য বেশ অভিজ্ঞ। অভিজ্ঞতা, দলীয় ভারসাম্য এবং শক্তিমত্তার দিক বিবেচনা করে বলা যায় বিশ্বকাপে ভারতের বেশ ভালো একটা সুযোগ আছে। তবে আবারও বলছি আমি র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে থাকা বাকি ছয় দলেরও তেমনই সমান সম্ভাবনা আছে।

নিজের মতামতের এই ব্যাখায় জন্টি রোডস জানান-ওয়েস্ট ইন্ডিজের কথাও বাদ দেই কেমন করে! র‌্যাঙ্কিংয়ের তারা এখন সাতে (এখানে একটু ভুল জানেন জন্টি, র‌্যাঙ্কিংয়ের সাতে বাংলাদেশ, আটে ওয়েস্ট ইন্ডিজ)।

উইন্ডিজও এখন ওয়ানডে ক্রিকেটে ভালো খেলছে। সার্বিক বিবেচনায় এবারের বিশ্বকাপে কোনো দলই কোনো ম্যাচেই ফেভারিট হিসেবে থাকছে না। প্রতিটি ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ। প্রতি ম্যাচেই পয়েন্ট চাই। ফরম্যাট বদলে যাওয়ায় এবারের বিশ্বকাপ সব দলের জন্যই উন্মুক্ত।

আপনার মতামত লিখুনঃ