নীলফামারীতে শৈত্যপ্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত

নীলফামারীতে শৈত্যপ্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত

রেজাউল করিম রঞ্জু,নীলফামারী প্রতিনিধি:
নীলফামারীতে গত ছয়দিন ধরে চলছে শৈত্য প্রবাহ। সেই সাথে হাড় কাঁপানো শীত আর হিমেল বাতাসে কাবু হয়ে পড়েছে এ জনপদের দরিদ্র ও ছিন্নমূল মানুষজন। শীতবস্ত্রের অভাবে অনেকে খড়কুটে জ্বালিয়ে শীত নিবারণের চেষ্টা করছেন। তীব্র শীতে মানুষজনের পাশাপাশি গবাদি পশুও যুবুথুবু হয়ে পড়েছে।

হিমালয়ের পাশাপাশি হওয়ায় প্রতিবছরেই অন্যান্য জেলার চেয়ে নীলফামারী জেলার শীতের তীব্র অনেক বেশি। এবারও এর ব্যতিক্রম হয়নি। পৌষের শুরু থেকে কনকনে শীত অনুভূত হচ্ছে এ জেলায়। এর সাথে গত ছয়দিন ধরে শুরু হয়েছে মৃদু শৈত্য প্রবাহ। সেই সাথে বইছে হিমেল হাওয়া। প্রতি দিনেই তাপমাত্রা কমছে জেলায়।

আবহাওয়া অফিস সূত্র মতে রবিবার নীলফামারীতে সর্বনি¤œ তাপমাত্রা ছিল ১১ ডিগ্রী সেলসিয়াস। গতকাল ঘন কুয়াশার কারণে বিকেল পর্যন্ত সূর্যের মুখ দেখা যায়নি। এদিকে পর্যাপ্ত শীতবস্ত্রের অভাবে দরিদ্র ও ছিন্নমূল লোকজন দুর্ভোগের মধ্যে পড়েছে।

নীলফামারী জেলা ত্রাণ ও পূর্ণবাসন কর্মকর্তা এস এ হায়াদ আলী জানিয়েছেন জেলায় ৪২ হাজার কম্বল বরাদ্দ এসেছে। এগুলো জেলার ৬ উপজেলায় ভাগ করে দেয়া হয়েছে, যা প্রতিদিনেই বিভিন্ন স্থানে শীতার্ত মানুষের মাঝে বিতরণ করা হচ্ছে।