কুড়িগ্রামে প্রধান শিক্ষক অফিস রুমে তালা দিলেন অবিভাবকরা

কুড়িগ্রামে প্রধান শিক্ষক অফিস রুমে তালা দিলেন অবিভাবকরা
কুড়িগ্রামে প্রধান শিক্ষক অফিস রুমে তালা দিলেন অবিভাবকরা

শ্যামল ভৌমিক, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি :
কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার চাঁন্দামারী উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক অফিস কক্ষ তিন ঘন্টা তালাবদ্ধ থাকার পর ইউএনও’র উপস্থিতিতে তালা খুলে দিয়েছেন এলাকাবাসী। শিক্ষক-কর্মচারীদের খেয়াল খুশি মতো বিদ্যালয়ে আগমন প্রস্তানের ঘটনায় বিক্ষুদ্ধ অভিভাবক ও এলাকাবাসী তালা ঝুলিয়েছিল।
সরেজমিনে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রোববার সকাল সাড়ে ১০ঘটিকা পেরিয়ে যাওয়ার পরও কোন শিক্ষক-কর্মচারী বিদ্যালয়টিতে উপস্থিত না হওয়ার প্রতিবাদে অভিভাবক ও এলাকাবাসী বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকদের অফিস কক্ষ দুটি’তে তালা ঝুলিয়ে দেয়।

চাঁন্দামারী গ্রামের বাসিন্দা, আঙ্গুর, আদম আলী, আপেল জানান, দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষকরা নিজেদের খেয়াল খুশি মতো বিদ্যালয়ে যাওয়া আসার কারনে এবং সঠিকভাবে পাঠদান কার্যক্রম না চলার শিক্ষার পরিবেশ বিনষ্ট হয়েছে। ফলে অভিভাবক ও এলাকাবাসী এর থেকে পরিত্রানের আশায় একত্রিত হয়ে তালা ঝুলিয়ে দেয়।
খবর পেয়ে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আশরাফুজ্জামান সরকার ও রাজারহাট থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টা চালান। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহ. রাশেদুল হক প্রধান ঘটনাস্থলে পৌঁছে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আজিজুল ইসলামকে অনুপস্থিত ও সহকারী শিক্ষকদের উপস্থিতি সময় উল্লেখ করে হাজিরা খাতায় স্বাক্ষর গ্রহনের পর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আসে। এসময় ইউএনও’র উপস্থিতিতে প্রধান শিক্ষকের মুভমেন্ট রেজিষ্টারে অনুপস্থিত থাকার বিষয়ে কোন লেখা পাওয়া যায়নি।

স্থানীয় কবিরাজপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক আজাদ হোসেন জানান, বিদ্যালয়টিতে সঠিকভাবে পাঠদান কার্যক্রম না চলায় শিক্ষার্থীদের বার্ষিক পরীক্ষা ও জেএসসি এবং এসএসসি পরীক্ষার ফলাফল অন্তত্য নি¤œমানের।
এবিষয়ে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আজিজুল ইসলামের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি।
উপজিলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহ. রাশেদুল হক প্রধান জানান, অনিয়মের সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে বিধি অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।