ইতিহাসে প্রতিদিন আজ (শুক্রবার) ২৮ জুন’২০১৯

হাজী দানেশের মৃত্যু
হতভাগা আন্দোলনের নেতা হিসেবে পরিচিত প্রখ্যাত কৃষক নেতা হাজী মোহাম্মদ দানেশের আজ মৃত্যুবার্ষিকী। ১৯৮৬ সালের এ দিনে তিনি ঢাকায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তার জন্ম ১৯০০ সালে দিনাজপুরের সুলতানপুরে এক জোতদার পরিবারে । ১৯৩১ সালে কলকাতার আলীগড় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইতিহাসে এমএ পাসের পরের বছর এলএলবি পাস করেন ।

১৯৩৮ সাল পর্যন্ত আইন ব্যবসায় রত ছিলেন। এরপর আত্মনিয়োগ করেন কৃষক আন্দোলনে। তার নেতৃত্বে দিনাজপুরে টোল আদায় ও জমিদারি প্রথার বিরুদ্ধে ব্যাপক সংগ্রাম পরিচালিত হয়। ৪২ সালে রংপুরের ডোমারে ঐতিহাসিক বঙ্গীয় কৃষক সম্মেলনের অন্যতম উদ্যোক্তা ছিলেন তিনি। দ্বিতীয় মহাযুদ্ধের পর বর্গা চাষীদের অধিকার আদায়ের উত্তরবঙ্গে তেভাগা আন্দোলনের নেতৃত্ব দেন।

কৃষক আন্দোলনে নেতৃত্ব দেওয়ার কারণে কারাভোগ করেছেন বেশ কয়েকবার। ১৯৪৫ সালে যোগ দেন মুসলিম লীগে পাশাপাশি তেভাগা আন্দোলনও অব্যাহত রাখেন । এ নিয়ে মুসলিম লীগ হাইকমান্ডের সঙ্গে মনোমালিন্যের কারণে পরের বছরই মুসলিম লীগ ত্যাগ এবং গ্রেফতার। ৪৭-এ মুক্তির পর কিছুদিন কলেজে অধ্যাপনা করেন। ৫২ তে গঠন করেন গণতন্ত্রী দল। ৫৪ তে যুক্তফ্রন্ট থেকে পূর্ববঙ্গ পরিষদের সদস্য নির্বাচিত ।

যুক্তফ্রন্ট মন্ত্রিসভা ভেঙে দেয়ার পর আবার গ্রেফতার। ৫৬ তে মুক্তি লাভের পর গণতন্ত্রী দল বিলুপ্ত করে যোগ দেন ভাসানীর ন্যাপে । ৫৮ তে সামরিক আইনে আবার গ্রেফতার। ৭১-এ ন্যাপ ভাসানী থেকে পদত্যাগ এবং মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে ভূমিকা রাখেন। দেশ স্বাধীনের পর জাতীয় গণমুক্তি ইউনিয়ন (জাগমুই) নামে আরেকটি নতুন দল গঠন করেন।

পরে জাগমুই বিলুপ্ত করে যোগ দেন শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বাধীন বাকশালে। ৭৫-এর পট পরিবর্তনের পর আবার জাগমুই পুনরুজ্জীবিত করেন। ৮০ তে আরো কিছু বাম নেতা মিলে জাগমুই-এর নতুন নাম দেন গণতান্ত্রিক পার্টি। ৮৬ তে এ দলটিকে এরশাদের জাতীয় পার্টির সঙ্গে একীভূত করে জাতীয় পার্টির অঙ্গসংগঠন জাতীয় কৃষক পার্টির প্রধান উপদেষ্টা নিযুক্ত হন।

১৭১২ খ্রীস্টাব্দের ২৮শে জুন ফ্রান্সের বিখ্যাত লেখক ও চিন্তাবিদ জন জ্যাক রুসো সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় জন্মগ্রহন করেন। রুসোর ছেলেবেলা ও যৌবন অত্যন্ত কষ্টের মধ্যে অতিবাহিত হয়। এই ফরাসী চিন্তাবিদ চল্লিশ বছর বয়সে সমাজ সম্পর্কে ব্যাপক গবেষণা শুরু করেন এবং ধীরে ধীর সমাজের নানা বিষয়ে নিজের দৃষ্টিভঙ্গি প্রকাশ করতে থাকেন। তিনি এমন কিছু লেখা লিখেছিলেন, যা পরবর্তীতে বিশ্বব্যাপী খ্যাতি অর্জন করে। তার বক্তব্য ও লেখনি ফরাসী জনগণের ওপর মারাত্মক প্রভাব ফেলতে সক্ষম হয় এবং ফরাসী বিপ্লবে তার চিন্তাধারা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে বলে ধারণা করা হয়। ফ্রান্সের এই চিন্তাবিদ ১৭৭৮ খ্রীস্টাব্দে পরলোকগমন করেন।

১৮৭৩ সালের ২৮শে জুন ফ্রান্সের বিশিষ্ট চিকিৎসক ও পরিবেশ বিজ্ঞানী ডক্টর এলেক্স কার্ল দেশটির রাজধানী প্যারিসে জন্মগ্রহন করেন। ১৯০০ সালে তিনি ডক্টরেট ডিগ্রি লাভ করেন এবং ১৯১৩ সালে নোবেল পুরস্কারে ভূষিত হন। তার বিখ্যাত একটি বইয়ের নাম “অচীন সৃষ্টি মানুষ”। ১৯২৪ সালে ফরাসী এই চিকিৎসা বিজ্ঞানীর মৃত্যু হয়।

১৯১৪ সালের ২৮শে জুন অস্ট্রিয়ার যুবরাজ ফ্রান্তেস ফার্দিনান্দ বর্তমান বসনিয়া হার্জেগোভিনা’র সারায়েভো শহর সফরকালে একজন সার্ব ছাত্রের হামলায় সস্ত্রীক নিহত হন। ঐ ঘটনার জের ধরে অস্ট্রিয়া সরকার ঐ হত্যাকারী ছাত্রকে গ্রেফতারের জন্য সার্বিয়ায় সেনা পাঠাতে উদ্যত হয়। কিন্তু সার্ব সরকার অস্ট্রিয়ার এ কাজে বাধা দেয়। এ ঘটনার সূত্র ধরে একমাস পর অস্ট্রিয়া সার্বিয়ায় হামলা চালায়। ঐ বছরেরই আগস্ট মাসে জার্মানী অস্ট্রিয়াকে সমর্থন জানায় এবং বেলজিয়ামের ওপর হামলা করে। আর এর মাধ্যমে প্রথম বিশ্বযুদ্ধের সূচনা হয়।

১৯১৯ সালের ২৮শে জুন ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসের উপকণ্ঠে ভার্সাই প্রাসাদে মিত্র বাহিনী ও তার বিরোধী পক্ষের মধ্যে বিখ্যাত ভার্সাই শান্তিচুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এই চুক্তির মাধ্যমে প্রথম বিশ্বযুদ্ধের সমাপ্তি ঘটে। ভার্সাই চুক্তিতে ৪২০টি ধারা ছিল এবং জার্মান প্রতিনিধিরা এ’র সবগুলো মেনে নেয়। ঐ চুক্তিতে বলা হয়, জার্মানী তার সেনাবাহিনীতে ব্যাপক পরিবর্তন আনবে এবং সেনা সংখ্যা এক লাখে নামিয়ে আনবে।

এছাড়া জার্মানী নিজের সমরসম্ভার হ্রাস করার পাশাপাশি জার্মান ভূখন্ডের কিছু অংশ ঐ যুদ্ধের বিজয়ী পক্ষ অর্থাৎ ফ্রান্স ও বৃটেনকে দিয়ে দেবে। ঐ চুক্তি অনুযায়ী জার্মানী যুদ্ধের ক্ষতিপূরণ বাবদ বিপুল অর্থ প্রদান করতে বাধ্য হয়। এছাড়া ভার্সাই চুক্তির মাধ্যমে সম্মিলিত জাতিপুঞ্জের ভিত্তি প্রতিষ্ঠিত হয়, যা আজ জাতিসংঘ নামে সবার কাছে পরিচিত।

২১ বছর আগে ১৯৮৭ সালের ২৮শে জুন ইরানের পশ্চিমাঞ্চলীয় সারদাশত শহরে ইরাকের সাবেক বাথ সরকারের জঙ্গী বিমান রাসায়নিক বোমা বর্ষণ করে। ঐ হামলায় সারদাশত শহরের ১১০ জন নিরপরাধ মানুষ শহীদ ও অপর ৫৩০ জন আহত হন। ইরাক সরকার ইরানের বিরুদ্ধে যুদ্ধে জয়ী হওয়ার কোন সম্ভাবনা না দেখে ইরানের বেসামরিক জনগণের ওপর রাসায়নিক অস্ত্র ব্যবহার শুরু করে। সাদ্দাম সরকার ভেবেছিল, এই পদ্ধতিতে ইরানকে কাবু করা যাবে। কিন্তু তাদের সে উদ্দেশ্য সফল হয় নি। ইরানের বিরুদ্ধে সাদ্দাম সরকার ৮ বছর ব্যাপী যুদ্ধে বহুবার রাসায়নিক অস্ত্র প্রয়োগ করলেও পশ্চিমা শক্তিগুলো এ ব্যাপারে নূন্যতম প্রতিক্রিয়া জানানো থেকে বিরত থাকে।

২০০৬ সালের ২৮শে জুন ইহুদীবাদী ইসরাইলী সেনারা গাজা উপত্যকায় আকাশ ও ভূমিপথে পাশবিক হামলা শুরু করে। একটি ইসরাইলী সেনা চৌকির ওপর ফিলিস্তিনী সংগ্রামীদের অতর্কিত হামলায় দুই জন ইসরাইলী সেনার মৃত্যু এবং অপর এক সেনা ফিলিস্তিনীদের হাতে বন্দী হওয়ার তিন দিন পর তেলআবিব ঐ ভয়াবহ হামলা শুরু করে।

গাজা উপত্যকায় ইসরাইলী হামলার প্রথম কয়েকদিনের মধ্যেই ফিলিস্তিনী পার্লামেন্টের বেশ কয়েকজন সদস্য, নির্বাচিত হামাস সরকারের কয়েকজন মন্ত্রী এবং স্থানীয় সরকার পরিষদের কিছু প্রতিনিধি ইহুদীবাদী সেনাদের হাতে অপহৃত হন। এছাড়া কয়েকশ ফিলিস্তিনী ঐ হামলায় হতাহত হন। ইসরাইলী সেনারা এমন সময় তাদের একজন সহকর্মীকে মুক্তির জন্য গাজা উপত্যকায় রক্তের গঙ্গা বইয়ে দেয় যখন প্রায় ১০ হাজার ফিলিস্তিনী বন্দী ইহুদীবাদী বন্দী শিবিরগুলোতে অমানবিক নির্যাতনের শিকার হচ্ছে।

৫৪৪ হিজরির আজকের দিনে বিশিষ্ট মুসলিম চিন্তাবিদ আহমাদ বিন আলী বেইহাকি সাবযেভারি ইন্তেকাল করেন। তিনি পবিত্র কোরআনের তাফসির করতে পারতেন এবং জ্ঞানবিজ্ঞানের বিভিন্ন শাখায় সে যুগের একজন পন্ডিত ব্যক্তিতে পরিণত হতে পেরেছিলেন। তার লেখা অনেক বই এখনো বিদ্যমান। এসব বইয়ের অধিকাংশই পবিত্র কোরআন সম্পর্কে লেখা হয়েছে।

৬১৬ হিজরির আজকের দিনে বিখ্যাত আরব কবি ও সাহিত্যিক ইয়াহিয়া বিন কাসেম সাআলবি বা আবু যাকারিয়া ইন্তেকাল করেন। তিনি সাহিত্যকর্ম ছাড়াও ফেকাহ ও তাফসির শাস্ত্রে ব্যাপক পান্ডিত্য অর্জন করেছিলেন। তার লেখা অনেক সাহিত্যকর্ম আজো পাঠককে আকৃষ্ট করে।

পোপ প্রথম পলের মৃত্যু (৭৬৭)
আদিগ্রন্থ দারা শিকোহ অনুদিত শির-ই-আকবর প্রকাশিত (১৬৫৭)
মহারানী ভিক্টোরিয়ার রাজ্যাভিষেক (১৮৩৮)
পাঞ্জাব কেশরী মহারাজা রণজিৎ সিংয়ের মৃত্যু (১৮৩৯)
জার্মান ও মিত্র জোটের ভার্সাই চুক্তি স্বাক্ষরের মাধ্যমে প্রথম বিশ্বযুদ্ধের আনুষ্ঠানিক সমাপ্তি (১৯১৯)
জওহরলার নেহেরু ও চৌ এন লাইয়ের মধ্যে ভারত-চীন পঞ্চশীল নীতি ঘোষণা (১৯৫৪)
ভারত মহাসাগরের দ্বীপপুঞ্জ সেচিলিসের ১০২ বছর ব্রিটিশ শাসনাধীন থাকার পর স্বাধীনতা লাভ (১৯৭৬)
আমেরিকার বিমান ও নৌবাহিনীতে প্রথম মহিলা ক্যাডেট অন্তর্ভুক্ত (১৯৭৬)
তুরস্কের প্রেসিডেন্ট সুলাইমান ডেমিরেলের ৭৩ বছরের মধ্যে প্রথম দেশে ইসলামিক নেতৃত্বাধীন সরকার অনুমোদন (১৯৯৬)

আপনার মতামত লিখুনঃ